শুক্রবার, ০৭ অগাস্ট ২০২০, ০৪:০৩ অপরাহ্ন

ডোপ পাপে দুই বছরের জন্য নিষিদ্ধ পেসার অনিক,

নিজস্ব প্রতিবেদক :
ডোপ টেস্টে পজিটিভ হওয়ায় অনূর্ধ্ব-১৯ জাতীয় দলের সাবেক পেসার কাজী অনিক ইসলামকে দুই বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে। গত ফেব্রুয়ারিতে তিনি নিষিদ্ধ হলেও গতকাল ২৬ জুলাই, রবিবার এক বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।২০১৮ সালের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে বাংলাদেশের হয়ে অংশ নেনে বাঁহাতি এই পেসার। টুর্নামেন্টে তার করা একটি বলের গতি ঘণ্টায় ১৬০ কি.মি. গতিতে উঠলে আলোড়ন তৈরি হয়। পরে জানা যায়, যান্ত্রিক ত্রুটিতেই এতো বেশি গতি দেখিয়েছিল সেই বলটি।সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিসিবি গতকাল জানায়, নিষিদ্ধ ওষুধ সেবনের মাধ্যমে বিসিবির অ্যান্টি ডোপিং কোডের ৮.৩ নম্বর ধারা ভঙ্গ করেন বাঁহাতি পেসার কাজী অনিক।ঢাকা মেট্রোপলিটন দলের হয়ে জাতীয় লিগে খেলার সময় ২০১৮ সালের ৬ নভেম্বর কক্সবাজারে ডোপ টেস্ট করা হয় কাজী অনিকের। তখন এর ফলাফল পজিটিভ আসে। এরপর গত বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে অনিকের শাস্তি কার্যকর হয়। সে হিসাবে ২০২১ সালের ৭ ফেব্রুয়ারি মাঠে ফিরতে পারবেন তিনি।তবে এতো দীর্ঘদিন পর অনিকের ডোপ টেস্টে পজিটিভ হওয়ার বিষয়টি কেনো জানালো বিসিবি তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। অবশ্য এর আগেই নিজের ভুল স্বীকার করে শাস্তি মেনে নেন অনিক।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *